ধ’র্ষণের পর ঢাবি ছা’ত্রীর কাছে ৫০০ টাকা চেয়েছিল মজনু, তখন বাধা পেয়ে…

0

ধ’র্ষণের পর ঢাবি ছা’ত্রীর কাছে ৫০০ টাকা চেয়েছিল মজনু- রাজধানীর কুর্মিটোলায় ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ছা’ত্রীকে ধ’র্ষণের মা’মলায় গ্রে’ফতার ভ’বঘুরে মজনু ধ’র্ষণের কথা স্বী’কার করেছে। রি’মান্ডে জিজ্ঞাসাবাদে ঢাকা মহানগর পু’লিশের গোয়েন্দা শাখাকে (ডিবি) সে জানিয়েছে,

ধ’র্ষণের পর ওই ছাত্রীর কাছ থেকে ৫০০টাকা দাবি করে সে। মজুন জানিয়েছে, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ওই ছাত্রী’কেও ভবঘুরে ভেবে ধ’র্ষণ করে সে। এতে বা’ধা পেয়ে তার ও’পরও শারী’রিক নি’র্যাতন চা’লায়।ডিবির জিজ্ঞাসাবাদে মজনু বলেছে, ধ’র্ষণের পর ওই ত’রুণীর কাছে সে ৫০০ টাকা দা’বি করে।

মেয়েটি তার ব্যা’গে টাকা আছে জা’নালে মজনু অ’ন্ধকারে ব্যা’গ খুঁ’জতে থাকে। একপর্যায়ে ব্যাগ পা’ওয়ার পর ভেত’রে টাকা খুঁ’জতে থাকে সে। আর এই ফাঁ’কে মে’য়েটি ছু’টে পা’লায় ঘটনাস্থল থেকে। মজনুর স্বী’কারোক্তির সূত্রে গোয়েন্দা কর্মক’র্তা আরও জানান, মজনু পেছন থেকে মুখ চে’পে

ধ’রে ঝোঁ’পের আ’ড়ালে নে’য়ার স’ময় বাঁ’চার আ’কুতি জানায় ঢা’বির ওই ছা’ত্রী। কিন্তু রাস্তায় চ’লাচলকারী দ্রু’ত’গতির যা’নবাহনের শ’ব্দে তা ঢাকা পড়ে যায়। এ সুযোগ নিয়ে ম’জনু আরও বে’পরোয়া আ’চরণ শুরু করে। একসময় নোয়াখালীর আঞ্চলিক ভা’ষায় নাট’কী’য় সংলাপ, অ’ঙ্গভ’ঙ্গি

ও খি’স্তি-খে’উড় করতে থাকে। এতে ওই ত’রুণী হ’তবি’হ্বল হয়ে পড়েন, হয়ে পড়েন চ’রম বি’পর্যস্ত। এ প’র্যায়ে কিছুটা সময় অ’চেতন ছিলেন তিনি। চে’তনা ফিরে পা’ওয়ার পর বে’হুঁশ হও’য়ার ভা’ন ধরে পা’লানোর প’থ খুঁ’জতে থাকেন। কিন্তু ম’জনুর ভ’য়ঙ্ক’র আ’চরণে সা’হস হা*রিয়ে ফে’লে হ’তবিহ্ব’ল হয়ে প’ড়েন ফের। পরে থা’কে ধ’র্ষণ করা হয়।

হ’ত্যার হু’মকি দিয়ে আগেও ব’হু না’রীকে ধ’র্ষণ করেছে বলেও তথ্য দিয়েছে মজনু। গ্রে’ফতারের পর র‌্যা’ব জানায়, মজনু একজন সি’রিয়াল রে’পিস্ট। মজনু আগে থেকেই ওঁ’ৎ পেতে ছিল ঘ’টনাস্থলে। ঢাবি ছা’ত্রীকে জো’রপূর্বক সেখান থেকে ধ’রে নিয়ে যায় সে। এর পর ঝো’পের এক পাশে নিয়ে পা’শবিক নি’র্যাতন চালানো হয়। এর আগেও একই জা’য়গায় কয়ে’কজন নারী’কে ধ’র্ষণ করে সে।

একই জা’য়গায় মজনু এ ধরনের অ’প’রাধ করেছে। প্র’তিবন্ধী, ভি’ক্ষুকসহ বিভিন্ন না’রীকে সে আ’ট’কে রেখে ধ’র্ষণ করত। তাদের হ’ত্যার হু’মকিও দিত। মজনু স্বী’কার করেছে ঘটনার সময় সে একাই ছিল, ভি’কটিমও তে’মনই বলেছে।

মজনু এখন সাত দিনের ডি’বি হেফাজতে রয়েছে। নাম প্রকাশে অ’নিচ্ছুক গোয়েন্দা পু’লিশের এক কর্মক’র্তা জানান, ম’জনু তার পা’ল্লায় প’ড়া না’রীদের ধ’র্ষণে বা’ধা পেলে চ’রম মা’রধর ক’রত সে। উল্লেখ্য, ৫ জানুয়ারি সন্ধ্যা ৭টার দিকে রাজধানীর কুর্মিটোলা হাসপাতাল এলাকায় ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের দ্বিতীয় ব’র্ষের ওই ছা’ত্রী ধ’র্ষণের শি’কার হন।

জানা যায়, বিকাল সাড়ে ৫টার দিকে বিশ্ববিদ্যালয়ের বাসে করে শেওড়ায় বান্ধবীর বাসায় যাচ্ছিলেন ওই ছাত্রী। সন্ধ্যা ৭টার দিকে তিনি ভু’ল করে কুর্মিটোলায় বাস থেকে নামা’র পর এক ব্যক্তি তার মু’খ চে’পে ধরে পা’শের নি’র্জন স্থানে নিয়ে যান। সেখানে তাকে অ’জ্ঞান করে ধ’র্ষণ ও শা’রীরিক নি’র্যাতন করেন।jugantor

Leave A Reply

Your email address will not be published.