ই-পেপার মঙ্গলবার, ২৫ জুন ২০২৪, ১১ আষাঢ় ১৪৩১

বাজারে অস্বস্তি

নিজস্ব প্রতিবেদক
২০ মে ২০২৩, ১৮:১৫
ফাইল ফটো

লাগামহীনভাবে বাড়তে থাকা ব্রয়লার মুরগির দাম কিছুটা কমলেও ভিন্ন চিত্র দেখা গেছে সবজিসহ অন্য সব নিত্যপণ্যের বাজারে। নানা অজুহাতে বিক্রেতারা সবজির দাম বাড়িয়ে দেয়ায় বেশ অস্বস্তিতে রয়েছেন সাধারণ ক্রেতারা।

শুক্রবার সকালে রাজধানীর বাসাবো কাঁচাবাজারে পণ্য কিনতে এসে নিজের অসহায়ত্ব প্রকাশ করছিলো এক ক্রেতা, তিনি বলেন, বাজারে কিছুই কেনার পরিস্থিতি নেই। যা কিছু কিনতে যাই আগুন জ্বলা দাম! চাল, ডাল, তেল, পেঁয়াজ বা মরিচ কিছুই কেনার মতো পরিস্থিতি নেই। বাজারে আসলেই টাকা হাওয়ার মতো উড়ে যাচ্ছে। সবকিছুর দাম বাড়লেও আয় তো বাড়েনি।

বাজার ঘুরে দেখা গেছে, গত সপ্তাহের ৫৫ টাকা কেজি দরের পেঁয়াজ এ সপ্তাহে মানভেদে বিক্রি হচ্ছে ৮০, ৮৫ এবং ৯০ টাকায়। ৩০ টাকা কেজি দরের আলু বিক্রি হচ্ছে ৪০ থেকে ৪৫ টাকায়। কয়েকদিন আগে যে আদা ছিল ১২০ টাকা তা এখন বিক্রি হচ্ছে ২৬০ থেকে ৩০০ টাকায়।

এছাড়া বড় সাইজের রসুন ১৫০ টাকা এবং ছোট সাইজের রসুন ১২০ টাকা কেজি দরে বিক্রি হচ্ছে। প্রতি ১ লিটার সয়াবিন তেল ১৯০ টাকা ও খোলা চিনি ১৩০ থেকে ১৪০ টাকা এবং প্যাকেটজাত চিনি ১৬০ টাকা কেজি দরে বিক্রি হচ্ছে। তবে বাজারে প্যাকেটজাত চিনির সংকট রয়েছে।

সবজির বাজার ঘুরে দেখা গেছে, লাল শাক, পালং শাক, কলমি শাকের আঁটি বিক্রি হচ্ছে ১৫ থেকে ২০ টাকায়। চাহিদা থাকায় কিছুটা বেড়েছে পুইশাকের দাম।

রাজধানীর শান্তিনগর বাজার, খিলগাঁও রেলগেট বাজার ও মেরাদিয়া হাট ঘুরে দেখা গেছে, ডিম বিক্রি হচ্ছে ১৪০ টাকায় (ডজন)। ব্রয়লার মুরগী গত সপ্তাহে বিক্রি হয়েছে ২১০ টাকায়, গতকাল ২২০ টাকা বিক্রি হতে দেখা গেছে। ক্ষেত্র বিশেষে ২৪০ টাকাও বিক্রি হচ্ছে। সোনালি মুরগির কেজি ৩৬০।

গরুর মাংস হাড়সহ ৭৮০ থেকে ৮০০; খাসির মাংস বিক্রি হচ্ছে ১১০০ থেকে ১১৫০ টাকায়। মাছের দামও বাড়তি। ছোট, বড় সব ধরণের মাছের দাম কেজিতে ৫০-১০০ টাকার মতো বেড়েছে। ক্রেতা-বিক্রেতাদের সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে, সপ্তাহ ব্যবধানে আমিষ হিসেবে পরিচিত ডিমের দাম ডজনে বেড়েছে ৫-১০ টাকার মতো।

খুচরা পর্যায়ে ফার্মের মুরগির ডিম প্রতি ডজন বিক্রি হচ্ছে ১৪০-১৪৫ টাকায়। যা গত সপ্তাহেও ছিল ১৩০-১৩৫ টাকা। শান্তিনগর বাজারের ডিম বিক্রেতা মো. ইলিয়াস বলেন, খুচরা বাজারে প্রতি ডজন ফার্মের মুরগির ডিম বিক্রি হচ্ছে ১৪০ টাকায়। গ্রামের ওরিজিনাল দেশি মুরগির ডিমের ডজন ২২০ টাকা। পাকিস্তানের কক মুরগির ডিম ১৮০ টাকা। হাঁসের ডিম প্রতি ডজন ১৮০ টাকা।

মোহাম্মদ মোশাররফ নামের এক বিক্রেতা বলেন, প্রতিটি জিনিসের দাম বাড়ছে। আমাদের কিছুই করার নাই। ভারত থেকে পেঁয়াজ না আসলে দাম এমনই থাকবে মনে হচ্ছে। কারণ, আমরা বেশি দামে কিনে কম দামে তো বিক্রি করতে পারি না।

পাল্লা প্রতি যে হারে দাম বৃদ্ধি করা হয় খোলা বাজারেও কেজি প্রতি তেমন মূল্য বাড়ে। বাজার করতে আসা শেফালী বেগম বলেন, প্রতিনিয়ত সবকিছুর দাম বাড়ছে। ছেলেমেয়েদের পড়াশোনার খরচ বাড়ছে। বাজার করতে আসতেই এখন ভয় লাগে। কী কিনবো আর কী বাদ দিব এটাই ভেবে পাই না। সবকিছুতে অতিরিক্ত দাম। মাছ, মাংস, চিনি, লবণ, ডিম কিছুই আর খাওয়ার মতো উপায় নেই।

মাছ, মাংস ও সবজির বাজার দিন দিন আরও চড়া হচ্ছে। বিশেষ করে সবজির দাম অনেকটা আকাশ ছোঁয়া। গত সপ্তাহের তুলনায় এসপ্তাহে বাজারে দাম বেড়ে প্রতি কেজি পটল ৭০ টাকায়, মূলা ৬০ টাকা আর গোল বেগুন ৭০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে। এছাড়া বাজারে সেঞ্চুরি পার করা সবজি গুলো হচ্ছে, কাকরল, বরবটি, কচুরমুখি। গত সপ্তাহের তুলনায় সবজির বাজারে দাম কমার তালিকায় আছে, প্রতি কেজি ৬০ টাকায় বিক্রি হওয়ার শসা এ সপ্তাহে বিক্রি হচ্ছে ৪০ টাকায়। গত সপ্তাহে প্রতিকেজি কাঁচা আম ৪০ টাকায় বিক্রি হলেও এ সপ্তাহে বিক্রি হচ্ছে ২০ থেকে ২৫ টাকায়।

সরেজমিনে রাজধানীর মেরাদিয়া হাট, রামপুরা বাজার, শান্তিনগর বাজার ঘুরে দেখা গেছে প্রতি কেজি শশা ৪০ টাকা, লেবুর হালি ২০ টাকা। লাউ প্রতি পিস ৬০-৮০ টাকায়। কাঁচামরিচ ২০০ টাকা কেজি।

ধনিয়াপাতা ৪০০ টাকা কেজি। ৩৫ টাকা কেজির আলু দাম বেড়ে ৪০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে। আর দাম বেড়ে দেশি পেঁয়াজ প্রতি কেজি ৮০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে। এসপ্তাহে সবজির বাজারে প্রতি কেজি ৬০ টাকায় বিক্রি হওয়া সবজি গুলো হচ্ছে ঢেঁড়স, চিচিঙ্গা ও চালকুমড়া।

আর প্রতি কেজি ৮০ টাকার মূল্যের সবজিগুলো হচ্ছে ফুলকপি, বাঁধাকপি, পটল, উস্তা, করলা, ধুন্দুল, ঝিঙে, বেগুন। প্রতিকেজি ১০০ টাকায় বিক্রি হওয়া সবজি গুলো হচ্ছে কাকরল, বরবটি, কচুরমুখি।

মেরাদিয়া হাটের খুচরা সবজি বিক্রেতা মো জাহাঙ্গীর বলেন, বাজারে সব জিনিসের দামই বেশি। আগে পটল ৬০ টাকা করে বিক্রি করতাম এই সপ্তাহে ৭০ টাকা কেজি বিক্রি করছে। গত সপ্তাহের মূলা বিক্রি করেছি ৫০ টাকায়। এ সপ্তাহের ১০ টাকা বেড়ে মূলা প্রতি কেজি ৬০ টাকা বিক্রি করছি। গত সপ্তাহে গোল বেগুন ৬০ টাকায় বিক্রি করেছি , এ সপ্তাহে ৭০ টাকায় বিক্রি করতে হচ্ছে।

৯০ টাকার মধ্যে ঢেঁড়স, বরবটি করলা কিনেছেন দক্ষিণ বনশ্রীর বাসিন্দা গৃহিণী শাহানারা খাতুন। জিনিসপত্রের দাম বাড়ায় তিনি চরম বিরক্ত। গৃহিণী শাহানারা খাতুন বলেন, তরকারির দাম আগের চেয়ে অনেক বেড়েছে। এখন বাজারে ৬০-৭০ টাকার নিচে কোনো সবজি নেই। আগে সবজির দাম এর থেকে কম ছিল। এখন সিজন, নন সিজন বলে কোন কথা নেই, সব কিছুরই দাম বাড়তি। আমাদের মতো যারা চাকরি করেন তাদের তো বেতন বাড়েনি।

জিনিসপত্রের দাম যেভাবে বেড়েছে সে তুলনায় আমাদের আয় বাড়েনি। বর্তমানে যারা মধ্যবিত্ত, নিম্নবিত্ত তাদেরই সমস্যা বেশি। উচ্চবিত্ত যারা আছেন. তাদের তো কোনো সমস্যা নেই। কারণ তাদের আয় প্রতিনিয়তই বাড়ছে।

প্রতিদিনই ঢাকার সব বাজারে সব ধরনের পণ্যের দাম বাড়ছে। দাম বাড়ার কোনো কমতি নেই; তবে আছে সরবরাহে! সব পণ্য সব সময় পাওয়া যায় না। যখন পাওয়া যায়, ‘কম আছে’ দোহাই দিয়ে পণ্যে দাম বাড়িয়ে দেন অসাধুরা। এমন পরিস্থিতি উদ্বেগ বাড়াচ্ছে ক্রেতাদের। কিছুদিন আগে চালের বাজার দিশেহারা হওয়ায় শঙ্কা ছিল ক্রেতা-বিক্রেতাদের মনে। বর্তমানে চালের দামে কিছুটা স্বস্তি ফিরেছে।

জানা গেছে, সপ্তাহের ব্যবধানে ঢাকার বাজারে প্রায় সব ধরনের চাল কেজিতে ২-৩ টাকা করে কমেছে। প্রতিকেজি সরু মিনিকেট চাল বিক্রি হচ্ছে ৭০-৭২ টাকায়। গত সপ্তাহের এর মূল্য ছিল ৭৫ টাকা। ভালো মানের নাজির শাইল চাল বিক্রি হচ্ছে ৮০ টাকায়; আগে ছিল ৮২-৮৫ টাকা।

সপ্তাহের ব্যবধানে আমিষ বাজারের সব পণ্যের দাম বেড়েছে। এতে বিক্রিতেও প্রভাব পড়েছে। সাধারণ ক্রেতারা বাজারে আসছেন ঠিকই; কিন্তু অতিরিক্ত দাম শুনে আর চাহিদা মতো পণ্য কিনছেন না। কেউ ফিরে যাচ্ছেন, কেউ আবার চাহিদার চেয়ে কম বা সাধ্যে যা কুলায় তা কিনে নিয়ে যাচ্ছেন। পাইকারি ও খুচরা বাজারে আবার পণ্যের দামের বিস্তর ফারাক।

এতে ক্রেতারাও চিন্তিত। বিক্রেতারা বলছেন, মাছ-মাংসের দাম বাড়লেও তাদের লাভ বাড়েনি। বিক্রিও আগের চেয়ে কমে গেছে। বর্তমানে যে মূল্যে পণ্য বিক্রি হচ্ছে, সিংহভাগ ক্রেতা বাজার থেকে ফিরে যাচ্ছেন।

সব ধরণের মাছে দাম বেড়েছে কেজিতে ৫০-১০০ টাকার মতো। খুচরা ব্যবসায়ীরা বলছেন, পাইকারি বাজারে দাম বাড়ায় খুচরা বাজারে এ সপ্তাহে প্রভাব পড়েছে। এতে ক্রেতার সংখ্যাও কমে গেছে। মেরাদিয়া হাটের মাছ বিক্রেতা মো. আবদুর রহমান জানান, তিনি প্রতি কেজি পাবদা ৫০০ টাকায় বিক্রি করছেন। চেউয়া মাছ ৩০০; লইট্টা ৩০০; পোয়া ৪০০; সামুদ্রিক স্যালমন ৫০০; কোরাল ৫০০; কাইক্কা ৪৫০-৫০০; আইড় মাছ ৭০০; বোয়াল মাছ প্রতিকেজি ৫০০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে।

শান্তিনগরের মাছ কিনতে আসে এক ক্রেতা। ক্ষোভ প্রকাশ করে তিনি বলেন, বাজারে যারা অযথাই দাম বাড়াচ্ছে সরকারের উচিত তাদেরকে আইনের আওতায় আনা। পাইকারি বাজারের যে দাম খুচরা বাজারে তার তুলনায় বিশাল তফাৎ। বাজারে মাছের দাম শুনলে কেনার সাহস করতে পারিনা। চেয়েছিলাম বড় মাছ কিনব; কিন্তু দামে মেলেনি তাই কিনতে পারিনি। ১০০০ টাকার আড়াই কেজি মিশ্র গুড়া মাছ কিনে নিয়ে যাচ্ছি।

এ বিষয়গুলো সরকার এখনই না দেখলে জনসাধারণ ভোগান্তিতে পড়বে। মানুষ না খেয়ে মরবে। বাজার ও বাজার সংশ্লিষ্টদের সঙ্গে কথা বললে, তারা ধারাবাহিক উত্তর দেন। কেউ বলেন সরবরাহ কম থাকায় দাম বেশি; আবার কেউ বলেন সিন্ডিকেটের মাধ্যমে পণ্যের দাম বেড়ে যাচ্ছে। যা-ই হোক, বাজার তদারকি ও পণ্যের মূল্য ন্যায্য ও স্বাভাবিক চায় জনগণ।

এবি/ওজি

জুনের ২৩ দিনে প্রবাসী আয় ২০৫ কোটি ডলার

চলতি মাসের (জুন) প্রথম ২৩ দিনে প্রবাসীরা ২০৫ কোটি ২০ লাখ মার্কিন ডলার দেশে পাঠিয়েছেন। মঙ্গলবার

সুনীল অর্থনীতিকে আরও এগিয়ে নিতে সরকার বদ্ধপরিকর

নৌপরিবহন প্রতিমন্ত্রী খালিদ মাহমুদ চৌধুরী বলেছেন, বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের সোনার বাংলা গড়ার লক্ষ্যে বাংলাদেশকে স্মার্ট ও

আইএমএফ ঋণের তৃতীয় কিস্তি ছাড়ের প্রস্তাব অনুমোদন

আন্তর্জাতিক মুদ্রা তহিবল-আইএমএফ বাংলাদেশের অনুকূলে ঋণের তৃতীয় কিস্তি বাবদ ১ দশমিক ১১৫ বিলিয়ন ডলার ছাড়

বাংলাদেশকে ১১৭৫ কোটি টাকা ঋণ দিচ্ছে দ. কোরিয়া

দক্ষিণ কোরিয়ার কাছ থেকে এক হাজার ১৭৫ কোটি টাকা ঋণ পেতে যাচ্ছে বাংলাদেশ সরকার। সামাজিক
  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়

রাষ্ট্রপতির সঙ্গে সন্ধানী প্রতিনিধি দলের সাক্ষাৎ

স্বাস্থ্যসেবা-স্বাস্থ্য শিক্ষায় নজরদারি অব্যাহত থাকবে: স্বাস্থ্যমন্ত্রী

জুনের ২৩ দিনে প্রবাসী আয় ২০৫ কোটি ডলার

দ্রুত ন্যায়বিচার নিশ্চিত করাই আমাদের লক্ষ্য: প্রধান বিচারপতি

মামুনুল হকের বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা

কমছে পানি, বন্যা পরিস্থিতি আরও উন্নতির আভাস

পবিপ্রবিতে অংশীজনের অবহিতকরণ সভা

বিশ্বকাপ থেকে বাংলাদেশের আয় সাড়ে পাঁচ কোটি টাকা

ক্রিকেটার খালেদ মাসুদ পাইলটের মায়ের ইন্তেকাল

গোপন চুক্তি করলে এখন বিএনপি ক্ষমতায় থাকতো: ফখরুল

বেনজীরের পাসপোর্ট জালিয়াতিতে ৮ কর্মকর্তাকে দুদকের জিজ্ঞাসাবাদ

সুনীল অর্থনীতিকে আরও এগিয়ে নিতে সরকার বদ্ধপরিকর

গণপূর্তমন্ত্রীর সঙ্গে বুয়েট গ্রাজুয়েট ক্লাব নেতৃবৃন্দের সৌজন্য সাক্ষাৎ

প্রাথমিকে বড় পরিসরে ফিরতে যাচ্ছে মিড-ডে মিল

অপকর্ম নিয়ে সংবাদ প্রকাশ করলেই জামায়াত-শিবির: রিজভী

কাঁঠালের বিচি দিয়ে স্পেশাল গরু ভুনা

নোবেল পাওয়ার আকাঙ্ক্ষা আমার নেই: প্রধানমন্ত্রী

দুই বছরে পদ্মা সেতুর আয় ১৬৪৮ কোটি টাকা: কাদের

তিস্তা প্রকল্প নিয়ে দুই দেশই প্রস্তাব দিয়েছে: প্রধানমন্ত্রী

প্রধানমন্ত্রীর ভারত সফর দেশের স্বার্থ আদায়ে ব্যর্থ: ফখরুল