ই-পেপার বৃহস্পতিবার, ১৩ জুন ২০২৪, ৩০ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১

ভারতের মতো নির্বাচন চায় বিএনপি: ফখরুল

অনলাইন ডেস্ক:
১০ জুন ২০২৪, ১৫:১৬
বিএনপির মহাসচিব ফখরুল ইসলাম আলমগীর। ফাইল ছবি

ভারতে যেভাবে নির্বাচন হয়েছে, বাংলাদেশেও বিএনপি সেরকম নির্বাচন চায় বলে জানিয়েছেন দলটির মহাসচিব ফখরুল ইসলাম আলমগীর। ভারতের নতুন সরকার এই প্রত্যাশাকে মর্যাদা দেবে বলেও আশা প্রকাশ করেন তিনি।

সোমবার (১০ জুন) ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটিতে কৃষক দলের আলোচনা সভায় এসব কথা বলেন মির্জা ফখরুল।

তিনি বলেন, বর্তমান সরকার নতজানু, তাই ভারতের বিরুদ্ধে কোনো কথা বলে না। দেশকে নতজানু ব্যর্থ রাষ্ট্রে পরিণত করতে চায় বলেই উন্নয়নের নামে দুর্নীতি ও লুটপাট চালাচ্ছে আওয়ামী লীগ। যে আওয়ামী লীগ স্বাধীনতার সংগ্রাম করেছিল, তারা এখন আর নেই। এখন আওয়ামী লীগ আজিজ আর বেনজীরের।

রাজনৈতিক-অর্থনৈতিক ছাড়াও বাংলাদেশ ভৌগোলিকভাবেও চ্যালেঞ্জের মুখে রয়েছে বলে মন্তব্য করে বিএনপি মহাসচিব বলেন, নিজেদের পায়ে দাঁড়ানোর সক্ষমতা নেই বলেই সীমান্তে হত্যা ও পানি সমস্যার সমাধান করতে পারছে না সরকার। পানি আমাদের স্বীকৃত অধিকার। কিন্তু বন্ধু দেশ ন্যায্য হিস্যা থেকে বঞ্চিত করছে আমাদের। তিস্তার পানি বণ্টন চুক্তির কথা বললেও হয়নি নতুন কথা।

মির্জা ফখরুল বলেন, ‘গতকাল একটি সামাজিক অনুষ্ঠানে গিয়েছিলাম। সেখানে আমার ইউনিভার্সিটির পুরানো এক বন্ধুর সঙ্গে দেখা। নাম বলবো না তার। আপনারা হয়তো চিনে ফেলবেন। সে এখন রাজনীতি থেকে দূরে আছে। সে ছাত্রলীগের নেতা ছিল। পরবর্তীকালে সে আওয়ামী লীগ করেছে, এমপিও হয়েছে। কিন্তু এখন প্রায় ১০-১৫ বছর ধরে সে রাজনীতি থেকে দূরে সরে আছে।

বিএনপি মহাসচিব বলেন, ‘আমি আমার বন্ধুকে জিজ্ঞেস করলাম, তুমি রাজনীতি করছো না কেন? সে বলে, কোন রাজনীতি করব? আমি বললাম, আওয়ামী লীগ করবা। সে বলল, আওয়ামী লীগ কি আর আওয়ামী লীগ আছে? এটাতো এখন আজিজ আর বেনজীরের আওয়ামী লীগ। এই যে দেখুন, একজন আওয়ামী লীগের নেতার উপলব্ধি, এটাই বাস্তবতা। আজকে আওয়ামী লীগ সেই আওয়ামী লীগ নেই।’

বাজেট প্রসঙ্গে মির্জা ফখরুল বলেন, ‘বাজেট নিয়ে অনেক কথা হয়েছে। এদের সম্পূর্ণ বাজেটটাই হচ্ছে লুটপাটের।’

বিএনপি মহাসচিব বলেন, ‘এই সরকারের ক্ষুধার শেষ নেই। সব কিছু খেয়ে ফেলছে। সরকারের লোকজন যার যা খুশি তাই করছে। একটা ভয়াবহ পরিস্থিতি চলছে দেশে। গত ১৫ বছরে আওয়ামী লীগ দেশের ৫৩ বছরের সমস্ত অর্জন ধ্বংস করে ফেলেছে। কোথাও কোনো বিচার নাই। ব্যবসা করতে গেলে সরকারের লোকজনকে চাঁদা দিতে হয়। এরা পরিকল্পিতভাবে দেশকে একটা ব্যর্থ রাষ্ট্রে পরিণত করতে চায়। এমন উন্নয়ন করেছে সরকার, যে জনগণ এখন ঢাকা শহর ছেড়ে গ্রামে চলে যাচ্ছে।’

ফখরুল বলেন, ‘এই সরকার ভোটের অধিকার কেড়ে নিয়েছে। কারও কথা বলার স্বাধীনতা নেই। দেশে পুরোপুরিভাবে একটা ফ্যাসিবাদ কায়েম করেছে। এখন আমাদের একটাই লক্ষ্য, যেভাবেই হোক এই ভয়াবহ দানব সরকারকে আন্দোলনের মধ্য দিয়ে পরাজিত করে জনগণের সরকার প্রতিষ্ঠা করতে হবে।’

তিনি বলেন, ‘দেশ গভীর চ্যালেঞ্জের সম্মুখীন হয়েছে। একদিকে রাজনৈতিক এবং অর্থনৈতিক, অন্যদিকে ভৌগোলিক দিক থেকে। তিস্তার পানি নিয়ে বহু খেলা হচ্ছে। ১৫ বছর ধরে ক্ষমতায় থেকেও এখন পর্যন্ত তিস্তার পানি চুক্তি করতে পারে নাই এই সরকার। অথচ জিয়াউর রহমান তিস্তার পানির জন্য জাতিসংঘ পর্যন্ত গিয়েছিলেন।’

জিয়াউর রহমানের স্মৃতিচারণ করে বিএনপি মহাসচিব বলেন, ‘জিয়াউর রহমান শুধু ক্ষণজন্মা পুরুষ ছিলেন না, তিনি ছিলেন দার্শনিক। আমরা কারও সংগ্রাম কারও অবদানকে ছোট করতে চাই না। জিয়াউর রহমানকে ছোট করা মানে দেশের স্বাধীনতাকে অস্বীকার করা। আমাদের দুর্ভাগ্য, আমরা তাকে বেশিদিন ধরে রাখতে পারি নাই। চক্রান্তকারীরা তাকে হত্যা করেছে।’

জাতীয়তাবাদী কৃষক দলের সভাপতি কৃষিবিদ হাসান জাফির তুহিনের সভাপতিত্বে এবং সাধারণ সম্পাদক শহিদুল ইসলাম বাবুলের সঞ্চালনায় আলোচনা সভায় বিএনপির ভাইস-চেয়ারম্যান শামসুজ্জামান দুদু, কৃষকদলের যুগ্ম-সম্পাদক কৃষিবিদ মেহেদী হাসান পলাশ, শাহাদত হোসেন বিপ্লব, সাংগঠনিক দিপু হায়দার খান প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

আমার বার্তা/এমই

দেশের রাজনৈতিক-অর্থনৈতিক কাঠামো ধ্বংস করেছে সরকার

আওয়ামী লীগ সরকার দেশের রাজনৈতিক ও অর্থনৈতিক কাঠামো ধ্বংস করেছে বলে মন্তব্য করেছেন বিএনপি মহাসচিব

বিএনপির রাজনীতি এ দেশের মানুষের রাজনীতি: ফখরুল

বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেন, শহীদ জিয়াউর রহমান গণতান্ত্রিক আকাঙ্খা, বহুদলীয় গণতান্ত্রিক নীতি

বাবার অসম্পূর্ণ কাজ বাস্তবায়নে রাজনীতি করবো: ডরিন

ঝিনাইদহ-৪ আসনের সংসদ সদস্য আনোয়ারুল আজিম আনারের মেয়ে মুমতারিন ফেরদৌস ডরিন জানিয়েছেন, ‘বাবার স্বপ্ন ছিল

জিয়া স্মৃতি পাঠাগার থেকে শতফুল ফুটবে: ফখরুল

বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, জিয়া স্মৃতি পাঠাগার থেকে শতফুল ফুটবে- সেই চিন্তা
  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়

পল্টনের আগুন: ধোয়ায় অসুস্থ নারী ঢামেক বার্ন ইউনিটে 

দোষী সাব্যস্ত হলে যাবজ্জীবন সাজা হতে পারে ড. ইউনূসের

পল্টনের ফায়েনাজ টাওয়ারে আগুন, নিয়ন্ত্রণে ৫ ইউনিট

দুই পৌরসভায় সাধারণ ছুটি ঘোষণা নির্বাচন কমিশনের

বিদ্যুতের প্রিপেইড মিটারে ভোগান্তি, তদন্তের নির্দেশ হাইকোর্টের

মিয়ানমারে দারিদ্র্য গভীর হয়েছে: বিশ্ব ব্যাংক

ফাজিলের ফল প্রকাশ, জানবেন যেভাবে

আমরা বাস করি ভূ-তলে, বিনিয়োগ করি পাতালে

যানজট এড়াতে ডিএমপির ২২ পরামর্শ

বেনজীরের আরও সম্পদ ও ফ্ল্যাট জব্দের নির্দেশ

তিস্তা মহাপরিকল্পনার বর্তমান পরিস্থিতি জানালেন প্রধানমন্ত্রী

জম্মু ও কাশ্মীরে ৭২ ঘণ্টায় তিন হামলায় নিহত ১২

নড়াইলে হত্যা মামলায় ৩ জনের মৃত্যুদণ্ড

অর্থনীতি অদক্ষতার ফাঁদে আটকে আছে: হোসেন জিল্লুর

শান্তিতে ভারত-পাকিস্তানকে পিছনে ফেলে এগিয়ে বাংলাদেশ

অনেক বড় জায়গা থেকে তদবির হচ্ছে: আনারকন্যা ডরিন

এমপি আনার হত্যা মামলা তদন্তে কোনো চাপ নেই: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

দেশের রাজনৈতিক-অর্থনৈতিক কাঠামো ধ্বংস করেছে সরকার

সীমান্তে গুলি চালাতে পারে বিএসএফ: বিজিবির মাইকিং

না ফেরার দেশে চলে গেল দগ্ধ শিশু আয়ান